Breaking News
Home / শিক্ষা / তালায় প্রধান শিক্ষক পছন্দ না হওয়ায় শিক্ষার্থীদের স্কুল বর্জন করালো অভিভাবকরা

তালায় প্রধান শিক্ষক পছন্দ না হওয়ায় শিক্ষার্থীদের স্কুল বর্জন করালো অভিভাবকরা

এসএম হাসান আলী বাচ্চু,তালা(সাতক্ষীরা) সংবাদদাতা
তালায় প্রধান শিক্ষক পছন্দ না হওয়ায় সন্তানদের স্কুলে যাওয়া বন্ধ করে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে । সকাল থেকেই অভিভাবকরা তাদের সন্তানদের স্কুলে না পাঠিয়ে নিজেরাই স্কুলের সামনে দাঁড়িয়ে জটলা করতে থাকেন।। ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল(শনিবার) উপজেলার সদরে অবস্থিত ১০৭ নং নুরুল্লাপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে।
অভিযোগ সুত্রে প্রকাশ,গত ১৫ অক্টোবর বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক হিসেবে মো: আক্তারুজ্জামান যোগদানের করেন । গতকাল শনিবার সে প্রথম স্কুলে আসার খবরে বিক্ষুব্ধ অভিভাবকরা তাদের সন্তানদের স্কুলে পাঠায়নি।
খবর পেয়ে স্থানীয় সাংবাদিকরা সকাল ১০ টার দিকে ঘটনাস্থলে অভিভাবকরা সাংবাদিকদের ঘিরে ধরেন। এসময় তারা সদ্য যোগদান করা প্রধান শিক্ষক মো: আক্তারুজ্জামানকে তাদের অপছন্দের কথা তুলে ধরে আন্দোলন করে বলতে থাকেন যতদিন পর্যনত তাকে সেখান থেকে অন্যত্র বদলী করা না হবে ততদিন পর্যন্ত তাদের সন্তানদের স্কুলে পাঠাবেননা ।
এদিকে স্থানীয় অভিভাবকদের দাবি,তারা উক্ত প্রধান শিক্ষককে ঐ স্কুলে চাননা। তিনি থাকলে তাদের ছেলে-মেয়েদের পড়া-লেখাও ভালভাবে হবেনা বলেও দাবি করেন তারা। তারা আরো বলেন,গত ৩ বছর যাবৎ বিদ্যালয়টির পরিচালনা পরিষদের কোন নির্বাচন হয়না। উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা একটি আহ্বায়ক করে গঠিত এডহক কমিটি দিয়েই চলছে এর পরিচালনা পরিষদের কার্যক্রম। এমন নানা সংকটে সর্বশেষ মডেল টেস্টে বিদ্যালয়টি থেকে ৯ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহন করলেও তাদের ১ জনও কৃতকার্য হয়নি। তাদের দাবি,বিদ্যালয়টির উন্নয়নের পাশাপাশি তাদের কোমলমতি ছেলে-মেয়েদের পড়া-লেখার মানোন্নয়নে এমন একজন প্রধান শিক্ষক চান যিনি বিদ্যালয়টিকে ভালভাবে চেনেন,জানেন ও ছেলে-মেয়েদের পড়ালেখায় মনোযোগী হবেন।
স্কুলের অফিস কক্ষে গিয়ে বিষয়টি প্রধান শিক্ষক মো: আক্তারুজ্জামানের নিকট জানতে চাইলে বলেন, তিনি সবে মাত্র বিদ্যালয়ে যোগদান করেছেন। কোন বিষয়ে তিনি জ্ঞাত নন,তকে এই সমস্যা থেকে উত্তরণের চেষ্টা চলছে । এসময় বিদ্যালয়ের মোট ছাত্র-ছাত্রীর সংখ্যা ও উপস্থিতি সম্পর্কে জানতে চাইলে রেজিস্টার দেখে তিনি বলেন,শিশু শ্রেনীতে কতজন শিক্ষার্থী আছে জানতে চাইলে রেজিষ্টার দেখে জানান,শিশু শ্রেণিতে ২৫ জন,১ম শ্রেণিতে ১৪ জন,২য় শ্রেণিতে ১০ জন,তয় শ্রেণিতে ৬ জন,৪র্থ শ্রেণিতে ১৫ জন ও ৫ম শ্রেণিতে ৯ জন মোট ৭৯ জন শিক্ষার্থী রয়েছে। তবে সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে বিভিন্ন শ্রেণি কক্ষে গিয়ে ১ম শ্রেণিতে মাত্র ১ জন শিক্ষার্থী ছাড়া অন্য কোন কক্ষে কোন শিক্ষার্থীকে উপস্থিত পাওয়া যায়নি। তবে শিক্ষকরা সকলে অফিস কক্ষেই উপস্থিত ছিলেন।
সর্বশেষ বছরের শেষ সময়ে প্রধান শিক্ষক কেন্দ্রীয় জটিলতায় শিক্ষার্থীদের শ্রেণি কক্ষের বাইরে থাকার বিষয়টিকে ঠিক ভাল চোখে দেখছেননা স্থানীয় সচেতন অভিভাবক মহল। সমাপনী পরীক্ষার আগে ক্লাস বর্জনে তাদের পড়ালেখায় নেতিবাচক প্রভাব পড়বে বলে আশংকা প্রকাশ করছেন।
এব্যাপারে তালা উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোস্তাফিজুর রহমানের সাথে যোগযোগ করার চেষ্টা করা হলে তা সম্ভব হয়নি ।

Check Also

রাঙ্গাবালীতে করোনা ভাইরাস-জনসচেতনতায় লিফলেট বিতরণ

মাহামুদ হাসান, রাঙ্গাবালী (পটুয়াখালী)প্রতিনিধিঃ পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলায় করোনা-ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব প্রতিরোধে জনসচেতনতায় লিফলেট বিতরণ করা হয় …