Breaking News
Home / সারাদেশ / বরিশাল / পটুয়াখালী / কলাপাড়া উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মোশাররফ হোসেন মৃধার নাম সবার মুখে

কলাপাড়া উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মোশাররফ হোসেন মৃধার নাম সবার মুখে

এ.আর.কুতুবে আলম:
বাংলাদেশের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আমেজ শেষ হতে না হতেই আবার উপজেলা নির্বাচনী আমেজ ও আনন্দ বিরাজ করছে দেশের বেশ কয়েকটি জেলায়। আর এই নিবার্চন ঘিরে প্রার্থী বাচাই যাঁচাই করছেন নিবাচর্নী জেলার উপজেলার ভোটারা। সারা দেশের ন্যায় পটুয়াখালী জেলার কলাপাড়া উপজেলার নিবার্চনী আমেজ একটু ভিন্ন রূপে প্রকাশ করছেন তৃনমূল ভোটারেরা। তারা তাদের উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে বেচে নিয়েছেন ত্যাগী নেতা চম্পাপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক এস,এম মোশাররফ হোসেন কে।
এলাকা সূত্রে জানায়যায়, কলাপাড়া উপজেলার ১২নং- চম্পাপুর ইউনিয়নের পাটুয়া গ্রামের কৃর্তি সন্তান এস,এম মোশাররফ হোসেন। তিনি ছাত্র জীবন থেকেই বঙ্গবন্ধুর আদর্শ নিয়ে প্রাথমিক বিদ্যালয় পড়ালেখা থেকে শুরু করে বিশ^ বিদ্যালয়ে পর্যন্ত বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ দল করে আসছেন। তিনি ও তার পরিবার আওয়ামীলীগের পরিবার। তাঁর ভেতর বাহিরে আওয়ামীলীগের নীতি ও আদর্শ বিরাজ করছেন। তিনি আওয়ামীলীগের চেইন্ড অব কমান্ড সর্ব সময় গুরুত্ব দিয়েগেছেন। তার প্রমান সে গত ২০১৩ সালের নব্য ইউনিয়ন চম্পাপুরে চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করতে চেয়েছিলেন কিন্তু থানা ও জেলা নেতাকর্মীরা তাকে বসতে বললে সে তা মেনে নেয় এবং যে প্রার্থীকে দল যাকে নমিনেশন দেয় তার পেছনে খেটে তাকে বিপুল ভোটে জয় লাভ করায়। তিনি ৮ বছর যাবৎ চম্পাপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদকের পদে সঠিক নেতৃত্বে যোগ্যতার সাথে দল পরিচালনা করে আসছে। তিনি গলাচিপা থাকাকালীন ঐ উপজেলার যুবলীগের নেতৃত্ব দিয়ে ছিলেন। তাঁর যোগ্যতার গুনাবলীর লক্ষ্যে তাকে পটুয়াখালী জেলা পরিষদের সদস্য পদ দিয়েছিলেন। তিনি তাঁর যোগ্যতার প্রমাণ সেখানেও ফুটিয়ে তুলতে সক্ষম হয়েছেন। কলাপাড়া উপজেলার প্রত্যেকটি ইউনিয়ন ও ওয়ার্ডে এস,এম মোশাররফ হোসেনের নাম সবার মুখে মুখে। এই উপজেলার তৃনমূল নেতাকর্মীর দাবী এস,এম মোশাররফ হোসেন কে উপজেলার চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হিসেবে পেতে চায়।
টিয়াখালী ইউনিয়নের ভোটার রহিম খা, লালুয়া ইউনিয়নের আমেনা বেগম, ফারুক হোসেন, ধানখালী ইউনিয়নের মুন্নি আলম মনি, জব্বার শিকদার, রহিম মৃধা, স্বপন চৌকিদার, নীলগঞ্জ ইউনিয়নের আরোতীরানী, রাধা রানী, বাবুল মুন্সী, ত্যাগাছিয়া ইউনিয়নের গাজী রাকিব ও তার স্ত্রী ইসরাত জাহান লাকীসহ অনেক তৃর্নমূল ভোটাররা জানান, আমরা চম্পাপুরের মোশাররফ মৃধাকে উপজেলার চেয়ারম্যান হিসেবে পেতে চাই। তিনি সমাজের ব্যপক উন্নয়ন মূলক কাজ করেছেন। এমনকি ঐলাকায় তিনি তার সরলতা ও ভদ্র মার্জিত ভাষার জন্য সবার ছেলে বুড়ো সবার প্রিয় ও শ্রদ্ধার পাত্র হতে পেরেছেন। নির্বাচনী এলাকার সবার দাবী একটাই দল মত নির্ভিশেষে মোশাররফ হোসেন মৃধাকে উপজেলা নির্বাচনে বিপুল ভোটে জয়লাভ করাবেন। তিনি সবার ভোট পাবেন । কারন হিসেবে দেখছেন তারঁ ভেতরে অহংকার বা মানুষের প্রতি অমর্যাদার ছাফ পাইনি সাধারন মানুষ। তিনি বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ধারন করে উপজেলাবাসী সেবা করবেন এমন প্রত্যাশা সাধারন খেটে খাওয়া মানুষের।
এ ব্যাপরে তিনি জানান, জনগণ আমাকে পছন্দ করেন এবং ভাল বাসেন। সুতরাং জসগনের মুখে হাসি ফুটাতে আমি নিবার্চন করবো যদি আমাকে আমার দলের উধ্বর্তন নেতারা সমর্থন করেন এবং নমিনেশন দেয় আমি নির্বাচন করবো। আমি দৃঢ়তার সাথে আমার দায়িত্ব পালন করবো। আমার জন্য সবাই দোয়া করবেন। কলাপাড়া উপজেলা বাসীর দোয়া প্রার্থী এস,এম মোশাররফ হোসেন মৃধা সবার দোয়া চাচ্ছেন।

Check Also

রাঙ্গাবালীতে করোনা ভাইরাস-জনসচেতনতায় লিফলেট বিতরণ

মাহামুদ হাসান, রাঙ্গাবালী (পটুয়াখালী)প্রতিনিধিঃ পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলায় করোনা-ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব প্রতিরোধে জনসচেতনতায় লিফলেট বিতরণ করা হয় …