Breaking News
Home / আইন ও আদালত / স্ত্রীর অশ্লীল ছবি প্রকাশ, চিন থেকে ফিরে খুন

স্ত্রীর অশ্লীল ছবি প্রকাশ, চিন থেকে ফিরে খুন

চট্টগ্রাম মহানগরীর ফয়সলেকে লেকভিউ আবাসিক হোটেলে কথিত স্বামী মাঈনুদ্দিন ওরফে শাহরিয়ার শুভ (২৯) কে গলা কেটে হত্যা করেছে চীন ফেরত চিকিৎসক স্ত্রী রোকসানা আক্তার পপি। বৃহস্পতিবার মধ্যরাতের এই ঘটনায় খুলশী থানা পুলিশের হাতে আটক হয়েছেন পপি। আটক পপি মিরসরাই উপজেলার বারৈয়ারহাট পৌরসভার মেহেদীনগর এলাকার আবু আহম্মদের মেয়ে।
অপরদিকে নিহত কথিত স্বামী শাহরিয়ার শুভ ফেনীর ছাগলনাইয়া উপজেলার ৯ নং শুভপুর ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ড বালিরচর গ্রামের সিরাজুল ইসলামের ছেলে। খুলশী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মো. নাসির উদ্দিন জানান তিনি ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলেন। তিনি আরো জানান আটক পপি প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে হত্যাকান্ডের কথা স্বীকার করেছেন। সে একাই এই হত্যাকান্ড ঘটিয়েছে বলে জানান। তবে এ হত্যার সাথে অন্য কেউ জড়িত আছে কিনা তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।
পপি স্বীকার করেন যে, শাহরিয়ার শুভর সাথে তার সম্পর্কটা ভাল যাচ্ছিল না। ফেসবুকে তার অশ্লীল ছবি ছড়িয়ে দিয়েছে শুভ। ফলে ক্ষিপ্ত হয়ে সে এই হত্যাকান্ড ঘটিয়েছে। তবে ওসি শেখ মো. নাসির উদ্দিন বলেন, কি কারণে খুন হয়েছে আর কে কে খুন করেছে এই বিষয়ে অনুসন্ধান চলছে। এই মুহূর্তে বিস্তারিত কিছু বলা যাচ্ছে না। শাহরিয়ার শুভর লাশ উদ্ধার করে শুক্রবার সকালে ময়নাতদন্তের জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।
খুলশী থানায় আসা নিহত শাহরিয়ার শুভর বড়ভাই মো. জাফর বলেন, আমার ভাইকে পরিকল্পিতভাবে গলা কেটে করে হত্যা করা হয়েছে। তার শরীর থেকে মাথা বিচ্ছিন্ন করে ফেলা হয়েছে। যা একা একটি মেয়ের পক্ষে সম্ভব নয়।
তিনি বলেন, পপি নামে একটি মেয়ের সাথে আমার ভাইয়ের সম্পর্ক ছিল। মেয়েটি বৃহস্পতিবার দুপুরে চীন থেকে দেশে এসেছে। আমার ভাই শাহ জালাল (র:) আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে রিসিভ করে তাকে নিয়ে চট্টগ্রামে আসে। আমাদের ধারণা মেয়েটি পরিকল্পিভাবে তার সহযোগিদের নিয়ে আমার ভাইকে গলা কেটে হত্যা করেছে।
শাহরিয়ার শুভর ঘনিষ্ট একটি সুত্র জানায়, শুভ ও পপির মধ্যে দীর্ঘদিন প্রেমের সম্পর্কের পর ৩/৪ বছর আগে তারা গোপনে বিয়ে করে। কিন্তু পপির পরিবার এ বিয়ে মানতে রাজি হয়নি। তারা পপিকে জোরপূর্বক তালাক করিয়ে নেয়। পরে দেড় বছর আগে লেখাপড়ার জন্য পপিকে চীন পাঠিয়ে দেয়। পপি সেখানে ডাক্তারি পড়েন।
সূত্র আরও জানায়, চীনে থাকাকালে পপি মীরসরাই এলাকায় অপর এক যুবকের সাথে সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ে। এ খবর পেয়ে শাহরিয়ার শুভ ২/৩ দিন আগে শুভ পপির ওই প্রেমিককে খুঁজতে যায় চট্টগ্রামের একটি কোচিং সেন্টারে। সেখানে পপির সেই প্রেমিককে হুমকি-ধমকি দিলে পপি দেশে আসে। বৃহস্পতিবার দুপুরে পপি ঢাকা আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে পৌছালে শাহরিয়ার তার এক বন্ধুকে নিয়ে প্রাইভেটকার যোগে ঢাকায় যায় রিসিভ করতে। পপি তখন প্রাইভেট কারে না এসে এবং শুভর বন্ধুর সাথে দেখা করতে অপরগতা প্রকাশ করে। শুভকে নিয়ে আলাদাভাবে বাসে করে চট্টগ্রাম আসে পপি। সরাসরি তারা ফয়স লেকের লেকসিটির লেকভিউ হোটেলে উঠে।
সংবাদ সম্মেলনে পপির দেয়া তথ্য মতে আমেনা বেগম বলেন মাঈন উদ্দিন ও পপি বৃহস্পতিবার হোটেল থেকে সকালে একসঙ্গে বের হয়ে সকালের নাস্তা করেন, এরপরে ষোলশহর এলাকার শপিং কমপ্লেক্সে শপিং করতে যান। মাঈন উদ্দিনকে সংগে নিয়ে পপি ছুরি কেনেন কোরবানির প্রয়োজন জানিয়ে। বিকেলে হোটেলে পৌছে সেই ছুরি দিয়েই গলা কেটে হত্যা করেন মাঈন উদ্দিনকে।

Check Also

রাঙ্গাবালীতে করোনা ভাইরাস-জনসচেতনতায় লিফলেট বিতরণ

মাহামুদ হাসান, রাঙ্গাবালী (পটুয়াখালী)প্রতিনিধিঃ পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলায় করোনা-ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব প্রতিরোধে জনসচেতনতায় লিফলেট বিতরণ করা হয় …